কাশিয়ানীতে কে হবে নবজাত বাচ্চার বাবা, বাচ্চার বাবার দাবিতে গ্রামে সালিশ করেন কুমারি মা

0
1328
প্রতিকী ছবি

 

আলোড়ন৭১ প্রতিবেদক:

গোপালগঞ্জের কাশিয়ানী উপজেলার রাজপাট ইউনিয়নের নাটগ্রামে বিবাহ বন্ধন ছাড়াই বাচ্চার মা হয় নাট গ্রামের লিটন সিকদারের মেয়ে নিলা। তার বাচ্চার বয়স দশ দিন।

শুক্রবার ( ২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ ) রাতে নাটগ্রামের সাইফুল সরদারের বাড়িতে বাচ্চার বাবার দাবিতে সালিশ করেন কুমারি মা।

প্রতিবেশী ও প্রত্যক্ষদর্শী থেকে জানা যায়, নাট গ্রামের লিটন সিকদারের মেয়ে নিলা বিবাহ বন্ধন ছাড়াই বাচ্চার মা হয়। বিষয়টি জানাজানি হওয়ার পর পিতৃত্বের দাবিতে সাইফুল সরদারের বাড়িতে উভয়ের অভিভাবকের সম্মতিতে সালিশ বসে। লিয়াকত সরদারের সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন সাবেক চেয়ারম্যান মনিরুল আলম, সাবেক মেম্বর ওমর আলী,বর্তমান মেস্বর আমিনুর সরদার, ইনামুল হকসহ স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গের সাথে অভিযুক্ত ইফাজ চৌধুরীর ও কুমারি মার সাথে দশ দিনের বাচ্চাও উপস্থিত ছিল। সালিশীর সিধান্ত অনুযায়ী আগামী তিন দিন পরে ( সোমবার ) জানানো হবে কি করা হবে।

অভিযুক্ত ইফাজ চৌধুরীর বাবা বলেন, আমাদের ফাঁসানোর জন্য মেয়েটিকে আমার ছেলের সঙ্গে লেলিয়ে দেয়া হয়েছে। গ্রামে আমাদের অনেক শত্রু আছে। আমার ছেলে নির্দোষ। আলোড়ন৭১ প্রতিনিধিকে অভিযুক্ত ইফাজ চৌধুরী বলেন মেয়ের সাথে আমার এক দেড় বছর আগে কথা হয়েছিল  মেয়ে ভালনা বুজতে পেরে যোগা যোগ বন্ধ করে দেই।

অভিযোগ কারী কুমারি মার বাবার কাছে জানতে চাই কেন এত দেরিতে বিষয়টি জানালেন, তিনি বলেন আমি বাচ্চা হওয়ার পর ঠিক পেয়েছি। আমরা আপনার মেয়ের সাথে কথা বলতে চাই, উত্তরে তিনি বলেন শুক্রবার গ্রামের মানুষ সালিশ বিচারে বসেছিল বিষয়টি নিয়ে আমাদের উভয় পক্ষকে তিন দিনের সময় দিয়েছে এর পর আপনাদের জানাবো আমরা কি করব।

রাজপাট ইউনিয়ন চেয়ারম্যান বিসয়টি নিয়ে বলেন, আমি এব্যপারে কিছুই জানিনা আমাকে কেহ কিছু বলেনি তাই আমি কিছু বলতে রাজি না। তবে এরকম ঘটনা সত্যি ঘটলে খুব খারাপ কথা এর সঠিক তদন্ত করে দুষি ব্যক্তির শাস্তি হওয়া উচিত। তবে ডিএনএ নমুনা পরিক্ষা করলেইত ঘটনার সত্যতা বেরিয়ে আসবে।

 

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here